Home / আইন আদালত / ১১ বছরে দুদকের মামলায় সাজার হার বেড়ে ৭৭ ভাগে

১১ বছরে দুদকের মামলায় সাজার হার বেড়ে ৭৭ ভাগে

গত ১১ বছরে দুদকের মামলায় সাজার হার বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৭৭ ভাগে। দুর্নীতি দমন কমিশন ও ব্যুরোর আমলে মামলা ও নিষ্পত্তি সংক্রান্ত প্রতিবেদনে এ তথ্য জানানো হয়। তবে উচ্চ আদালতের নির্দেশে অনেক মামলার বিচার স্থগিত আছে জানিয়ে দুদক কমিশনার বলেন, তথ্য প্রমাণ সংগ্রহে সময় লাগে বলেই মামলার গতি ধীর হয়।

করোনাকালেও থেমে নেই দুর্নীতির অনুসন্ধান। স্বাস্থ্যখাত ও ক্যাসিনোকাণ্ডে জনপ্রতিনিধি, ব্যবসায়ীসহ দুই শতাধিক ব্যক্তির বিরুদ্ধে অনিয়মের অভিযোগ সরব রেখেছে দুর্নীতি দমন কমিশনের করিডোর। প্রশ্নের মুখোমুখি হয়েছেন মন্ত্রী, এমপি জনপ্রতিনিধি, ব্যবসায়ীসহ অনেক হাইপ্রোফাইল ব্যক্তিত্ব।

২০০৯-১০ সালে কিছুটা ধারাবাহিকতা থাকলেও ২০১৫ সাল পর্যন্ত পাঁচ বছরে দুদকের মামলায় সাজার হার নেমে আসে ২০ শতাংশ পর্যন্ত। কিছুটা গতি ফেরে ২০১৬ সালে। বাড়ে মামলা নিষ্পত্তি হার ও সাজার হার। ২০২০ সাল শেষ হবার দু মাস আগেই দুদকের প্রকাশিত ১১ বছরের প্রতিবেদনে দেখা যায় চলতি বছরেই সাজার হার ৭৭ শতাংশ।

দুদক কমিশনার ড. মোজাম্মেল হক বলেন, অনুসন্ধান, তদন্ত এবং মামলা পরিচালনাসহ সবস্তরে দক্ষতা বৃদ্ধি পেয়েছে। আইনি বিষয়গুলো নিখুঁতভাবে পরীক্ষা-নিরীক্ষার করে সঠিকভাবে আলামত উপস্থাপন করার কারণে সাজা বৃদ্ধির হার বেড়েছে।

জনপ্রতিনিধিদের বিরুদ্ধে দুদকের অনুসন্ধান শুরু হলেও শেষ হয় না কেন সাংবাদিকদের এমন প্রশ্নের জবাবে দুদক কমিশনার জানান, কোনো তদন্তই থমকে নেই।

প্রকাশিত তথ্য অনুযায়ী, বিচারাধীন মোট মামলা ২ হাজার ৮৬৫, উচ্চ আদালতে স্থগিত ২৪২টি মামলা। ১১ বছরে সাজা ১ হাজার ৯১ জন। খালাস ৯৬৪ জনের।

About bdlawnews

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error: Content is protected !!

Powered by themekiller.com