সদ্য সংবাদ
Home / রাজনীতি / ভোট টানতে সড়ক মেরামত!

ভোট টানতে সড়ক মেরামত!

নারায়ণগঞ্জের সোনারগাঁ পৌর এলাকার বিভিন্ন সড়ক মেরামতের কাজ সম্প্রতি শুরু করা হয়েছে। পৌরসভা নির্বাচনে ভোট টানতে এ কাজ করা হচ্ছে বলে ভোটাররা মনে করছেন।

সোনারগাঁ পৌরসভা সূত্রে জানা যায়, নগর অঞ্চল উন্নয়ন প্রকল্পের অর্থায়নে ২০১৪ সালের ২৪ মে এবং চলতি বছরের ১৪ মে দুটি গুচ্ছে সোনারগাঁ পৌরসভার বিভিন্ন সড়ক, সেতু ও নালা নির্মাণের কার্যাদেশ দেওয়া হয়। ২০ কোটি ৩৫ লাখ টাকার প্রকল্পের প্রথম গুচ্ছের কাজ এ বছর শেষ হওয়ার কথা। কিন্তু ঠিকাদার যথাসময়ে কাজ শুরু করেননি। দুই মাস আগে ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের টিপুরদী থেকে সোনারগাঁ লোক ও কারুশিল্প ফাউন্ডেশনের প্রধান ফটক ও দ্বিতীয় ফটক পর্যন্ত দুটি সড়কের কাজ শুরু করা হয়। কিন্তু বৃষ্টির কারণে কাজ মাঝেমধ্যেই বন্ধ রাখা হয়। পৌর নির্বাচনের তফসিল ঘোষণার পর এ সড়ক দুটির মেরামতকাজ আবার শুরু করা হয়। ১৫ দিন ধরে চলছে পৌরসভার ২ ও ৩ নম্বর ওয়ার্ডের বিভিন্ন সড়কের কাজ।

এ দুটি প্রকল্প ছাড়াও বর্তমানে নগর অবকাঠামো উন্নয়ন প্রকল্পের অধীনে দেড় লাখ টাকা ব্যয়ে ১, ২, ৫ ও ৬ নম্বর ওয়ার্ডের পাঁচটি সড়কের মেরামতকাজ চলছে।
পৌরসভার ৮ নম্বর ওয়ার্ডের ভবনাথপুর গ্রামের বাসিন্দা আল-ইমরান বলেন, ‘গত বর্ষা মৌসুমে সড়ক মেরামত ও নালা নির্মাণ না করার কারণে আমরা দুর্ভোগে পড়েছিলাম। নির্বাচন সামনে রেখে এখন কাজ শুরু হয়েছে।’

পৌরসভার বর্তমান মেয়র সাদেকুর রহমান আওয়ামী লীগ থেকে মনোনয়ন না পেয়ে স্বতন্ত্র প্রার্থী হয়েছেন। তিনি বলেন, সড়কের উন্নয়নের সঙ্গে নির্বাচনের কোনো সম্পর্ক নেই। আগেই কাজগুলোর দরপত্র হয়েছিল। বর্ষার কারণে ঠিকাদার এত দিন কাজ করতে পারেননি।

মেয়র পদে আওয়ামী লীগের মনোনীত প্রার্থী ফজলে রাব্বী বলেন, ভোটারদের কাছে টানতেই বর্তমানে সড়ক মেরামতের এত তোড়জোড় চলছে। মানুষের কষ্ট লাঘব করতে আরও আগেই কাজ শেষ করার দরকার ছিল।

সোনারগাঁ পৌরসভার সহকারী প্রকৌশলী কাইয়ুম চৌধুরী বলেন, ঠিকাদারকে কার্যাদেশ দেওয়ার পর দেড় বছর পার হয়েছে। এখনো কাজ শেষ হয়নি। পৌরসভা কর্তৃপক্ষের অনুরোধে দুই মাস ধরে দ্রুত কাজ চলছে। আগামী তিন মাসের মধ্যে অধিকাংশ সড়কের মেরামতকাজ শেষ হবে। তখন মানুষের আর দুর্ভোগ থাকবে না।

About admin

Check Also

করোনাভাইরাস থেকে মানুষকে বাঁচানোর জন্য ভবিষ্যতে আরও কঠোর পদক্ষেপ

করোনাভাইরাস থেকে মানুষকে বাঁচানোর জন্য ভবিষ্যতে আরও কঠোর পদক্ষেপ নিতে হবে বলে মনে করেন প্রধানমন্ত্রী …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error: Content is protected !!

Powered by themekiller.com