সদ্য সংবাদ
Home / আন্তর্জাতিক / জলবায়ু পরিবর্তন: লবণের হুমকিতে ভেনিসের প্রাচীন স্থাপত্য

জলবায়ু পরিবর্তন: লবণের হুমকিতে ভেনিসের প্রাচীন স্থাপত্য

জোয়ারের পানি বেড়ে যাওয়ায় ভয়াবহ বন্যায় প্লাবিত হয়েছে ইতালির ভেনিস শহর। ৫০ বছরের ইতিহাসে সবচেয়ে বেশি ১.৮৭ মিটার (৬ ফুট) উচ্চতার পানিতে তলিয়েছে এই সেরা পর্যটন নগরী। বন্যার বিপদের সঙ্গে ভেনিসের স্থাপত্যের জন্য এক মহাবিপদ হয়ে এসেছে লবণ। বন্যার লবণাক্ত পানি শহরের প্রাচীন ও প্রত্নতাত্ত্বিক স্থাপত্যে প্রবেশ করছে। পানি সরে গেলেও সেখানে লবণের কণা থেকে যাবে, যা ধীরে ধীরে এই স্থাপত্যগুলো খেয়ে ফেলবে বলে আশঙ্কা করা হচ্ছে।

রয়টার্সের এক ্রপতিবেদন থেকে এসব তথ্য জানা যায়। গত সপ্তাহ খানেক ধরে বন্যায় তলিয়ে আছে ভেনিস।

ভেনিসের মেয়র লুইগি ব্রুগনারো শুক্রবার বলেন, ‘লবণাক্ত পানি আমাদের জন্য সবকিছু কঠিন করে দিচ্ছে। নতুন স্রোতে মাত্র তিন দিনে শহরের ৭০ শতাংশ এলাকা তলিয়ে গিয়েছে। এটা গত ৫০ বছরের মধ্যে সর্বোচ্চ।’

শহরে লবণাক্ত পানি প্রবেশের কারণ হিসেবে রয়টার্স জানায়, জলবায়ু পরিবর্তনের কারণে সমুদ্রপৃষ্ঠের উচ্চতা বাড়ছে। এমন অবস্থায় নদী ও খাল খননের কারণে সাগরের লবণাক্ত পানি এসব জায়গায় প্রবেশ করছে।

ভেনিসের সাবেক ডেপুটি মেয়র জিয়ানফ্রাঙ্কো বেটিন বলেন, খাল খনন এবং তেল ট্যাংকারগুলির যাতায়াত মূলত সাগরের সঙ্গে হাইওয়ের মতো সংযোগ করে দিয়েছে। জলবায়ু পরিবর্তন সমুদ্রের পানির স্তর বাড়িয়ে দিচ্ছে এবং সাগরের পানিকে শহরের দিকে ঠেলে দিচ্ছে।

এ পানির বিপদ সম্পর্কে রয়টার্সের প্রতিবেদনে বলা হয়, বন্যার পানিতে মিশে থাকা লবণের কণা স্থাপত্যের ইটের জোড়া লাগানো পদার্থকে খেয়ে ফেলবে এবং টুকরো টুকরো করে দেবে।

লবণাক্ত পানির কারণে যেসব স্থাপত্য সবচেয়ে বেশি ক্ষতির মুখে তার অন্যতম হলো বাইজেন্টাইন সেন্ট মার্ক বাসিলিকা সেন্টার। প্রাচীন মোজাইক ও মার্বেলে তৈরি এর কলামগুলো, যা ভঙ্গুর প্রকৃতির। বন্যার লবণাক্ত পানি এটিকে ধ্বংস করে দিতে পারে।

এ ছাড়া ভেনিসের প্রাচীন গির্জা নাভেতে মঙ্গলবার বন্যার পানি প্রবেশ করেছে। ১ হাজার ২০০ বছরের ইতিহাসে এবার নিয়ে ষষ্ঠবারের মতো ঘটেছে এমনটা। মাত্র ১৩ মাস আগে একবার এটি পানির নিচে চলে গিয়েছিল। যেসব কলামের ওপর গির্জাটি দাঁড়িয়ে রয়েছে বন্যার পানি সেগুলোর মধ্যে লবণাক্ত কণা ঢুকিয়ে দিচ্ছে।

সম্প্রতি জোয়ারের পানি বেড়ে যাওয়ায় হঠাৎ করে বন্যা দেখা দেয় বিশ্বের প্রাচীন নগরী ভেনিসে। শহরের প্রায় ৮০ শতাংশ পানির নিচে চলে গিয়েছে। বৃহস্পতিবার থেকে সেখানে জরুরি অবস্থা জারি করেছেন ইতালির প্রধানমন্ত্রী গুইসেপ কন্তে। বন্যার প্রাথমিক ক্ষয়ক্ষতি থেকে বাঁচাতে ২০ মিলিয়ন ইউরো বরাদ্দ দিয়েছেন তিনি।

বন্যার পানিতে তলিয়ে গিয়েছে বেশির ভাগ শিক্ষা ও ব্যবসাপ্রতিষ্ঠান। সব শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ করে দেয়া হয়েছে। শুক্রবার দেশটির সংসদ ভবনেও পানি প্রবেশ করেছে। ভেনিসের সবচেয়ে বিলাসবহুল হোটেল গেরিত্তি প্রাসাদও বন্যায় প্লাবিত হয়েছে।

About bdlawnews24

Check Also

বাহরাইনের প্রধানমন্ত্রীর মৃত্যুতে কাল দেশে একদিনের শোক

বাহরাইনের প্রধানমন্ত্রী শেখ খলিফা বিন সালমান আল খলিফার মৃত্যুতে আগামীকাল মঙ্গলবার একদিনের রাষ্ট্রীয় শোক পালন …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Powered by themekiller.com